এনায়েতপুরে শিক্ষকের বাড়িতে বোমা সদৃশ বস্তু রাখায় দু’জন গ্রেফতার

প্রকাশিত: জুলাই ০৬, ২০২২, ০৮:৩৬ রাত
আপডেট: জুলাই ০৬, ২০২২, ০৮:৩৬ রাত
আমাদেরকে ফলো করুন

এনায়েতপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুরের বেতিল বাজারে ওষুধের দাম বেশি নেয়ায় বাড়িতে ‘বোমা সদৃশ বস্তু’ রেখে প্রতিবেশী দু’বিদ্যুতমিস্ত্রি ভয় দেখান ব্যবসায়ী শিক্ষক আব্দুল গফুরকে। পুলিশি অভিযানে গ্রেফতারের পর আজ বুধবার দুপুরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশকে এমন তথ্য দিয়েছে। এনায়েতপুরের গোপরেখী গ্রামের অধিবাসি গ্রেফতারকৃত হাবিবুর রহমান হাবিব ও সাব্বির হোসেনের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনের ধারায় মামলা হয়েছে। তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এনায়েতপুরের ওসি আনিছুর রহমান জানান, শাহজাদপুর ঘোড়শাল সাহিত্যিক বরকতউল্লাহ ডিগ্রি কলেজের সহকারী অধ্যাপক গোপরেখী গ্রামের আব্দুল গফুরের মালিকাধীন ওষুধের দোকান রয়েছে। বেতিল বাজারের ওষুধের দোকান থেকে ক’দিন আগে ওষুধ কেনে হাবিব। ওষুধের দাম বেশি নেয়ার কারণে উভয়ের মধ্যে বাগ-বিতণ্ডা হয়। ওই ঘটনার জেরে সংক্ষুব্ধ হয়ে ব্যবসায়ী শিক্ষক গফুরকে শায়েস্তা করতেই তার বাড়িতে বোমা সদৃশ বস্তু রেখে ভয়ভীতি দেখিয়ে চাঁদা দাবি করে হাবিব ও সহযোগী সাব্বির। তারা ইউটিউব দেখে বোমার আদলে ওই বস্তুটি তৈরি করে। মোবাইল ফোনের সূত্র ধরে মঙ্গলবার রাতে দু’জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এর আগে রোববার রাতে অপরাধীরা শিক্ষকের বাড়িতে বোমা সদৃশ বস্তু রাখায় তার পরিবারসহ পুরো এলাকাবাসী আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। সোমবার রাতে ঢাকা থেকে র‌্যাবের মেজর মশিউর রহমানের নেতৃত্বে বোমা নিস্ক্রিয় দল বস্তুটি উদ্ধার করে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়