দেশের প্রথম জেলা হিসেবে পঞ্চগড় ক্যাশলেস যুগে প্রবেশ করল

প্রকাশিত: জানুয়ারী ২৫, ২০২৩, ১১:৩৯ রাত
আপডেট: জানুয়ারী ২৫, ২০২৩, ১১:৩৯ রাত
আমাদেরকে ফলো করুন

পঞ্চগড় প্রতিনিধি: দেশের প্রথম জেলা হিসেবে পঞ্চগড় ডিজিটাল লেনদেন হিসেবে ক্যাশলেস যুগে প্রবেশ করল। এই সেবা চালুর মধ্য দিয়ে স্মার্ট বাংলাদেশে যুক্ত হলো পঞ্চগড়। এখন থেকে ইউনিয়নের নাগরিকরা ইউনিয়ন পরিষদের ২০টি সেবা অতি সহজে গ্রহণ করতে পারবেন।

তেঁতুলিয়া উপজেলায় শুরুর পর গত মঙ্গলবার সকাল থেকে পঞ্চগড় সদর উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে শুরু হয়েছে এই সেবা।
আজ বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকালে পঞ্চগড় সদর ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে দেখা যায়, জন্মসনদ, ট্রেডলাইসেন্স সেবা নিতে আসা সেবাগ্রহীতারা ক্যাশলেসের মাধ্যমে সেবা নিচ্ছেন।

পশ্চিম শিংপাড়া গ্রামের মৃত তাজিম উদ্দীনের মেয়ে সমিজা খাতুন এসেছেন নাগরিকত্ব সদন নিতে। তিনি জানান, কোন প্রকার ঝামেলা ছাড়াই ক্যাশলেসের মাধ্যমে ফি পেমেন্ট করে সেবাটি গ্রহণ করলাম। খুব ভালো লাগলো। পঞ্চগড় সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাসুদুল হক জানান, দেশের প্রথম জেলা হিসেবে পঞ্চগড় ক্যাশলেস যুগে প্রবেশ করল।

এখন থেকে ইউনিয়ন পরিষদে এসে নাগরিকদের আর কোন ধরনের ভোগান্তি পেতে হবে না। এতে করে সেবা গ্রহিতারা নির্ধারিত সরকারি খরচে সেবা গ্রহণ করতে পারবে। অতিরিক্ত কোন অর্থ ব্যয় করতে হবে না। এছাড়া সরকারি অর্থ তছরুপের কোন সুযোগ থাকবে না। তেঁতুলিয়া উপজেলা থেকে শুরু হয়ে পঞ্চগড় সদর উপজেলায় এই সেবা কার্যক্রম শুরু হল।

কিছুদিনের মধ্যে বাকি তিন উপজেলাতেও এই সেবার কার্যক্রম শুরু হবে। জানা গেছে, ইউনিয়ন পরিষদে ট্রেড লাইসেন্স, চারিত্রিক সনদ, নাগরিকত্ব সনদ, ভূমিহীন সনদ, ওয়ারিশান সনদ, উত্তরাধিকার সনদ, অবিবাহিত সনদ, বিভিন্ন ধরনের প্রত্যয়নপত্র, অর্থিক অসচ্ছলতার প্রত্যয়ন, বিভিন্ন লাইসেন্সের মধ্যে ট্রেড লাইসেন্স, অগভীর নলকূপ স্থাপন লাইসেন্স, অযান্ত্রিক যানবাহনের (রিকশা, ভ্যান এবং বাইসাইকেল) লাইসেন্স প্রদানসহ নানাবিধ নাগরিক সেবা প্রদান করে থাকে।

এর পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের কর (হোল্ডিং ট্যাক্স, রফতানি কর, পেশাবৃত্তি কর ইত্যাদি) আদায় করে থাকে। এসব সেবা নিতে সেবাগ্রহিতারা এখন থেকে তাদের মোবাইল থেকে নগদ/বিকাশ এর মতো ক্যাশলেস এর মাধ্যমে ফি পেমেন্ট করে সেবা নিতে পারবেন।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক করতোয়া এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়